দৃষ্টি চকিত

চোখের মধ্যে চোখ রেখে দেখি

পাপড়ি মেলছে রোদের কুসুম ;

যেখানে বর্গ ইঞ্চিতে সাঁতার কাটে চোরা ঘূর্ণী ,

মায়ার চন্দন লেপে দেয় নবমীর ললাটে ,

বুকের ভিতর দগ্ধ দামাল ঘোড়া

তপ্ত রোদে বিষের ছোবল ঢালে ,

বুদ্ধির গোড়া জাপটে ধরে

আফগানের লাল কুয়াশা ,

অকর্ষিত মাঠে উল্টে পড়ে শিল্পীর তেল রং ;

ভোজবাজি আজ আগুন জ্বালে ,

চোরাগোপ্তা আঘাত হানে ,

তবুও বোবা ঠোঁটে , আমলকি বনের

হিরণ্য শরীর 

অল্প অল্প সঞ্চয় করি অভিমন্যু শক্তি ;

মাঝে মাঝে অগ্নি মশাল

হাত থেকে পড়ে গেলে –

পাতা পড়া সাঁওতালি অন্ধকার নেমে আসে ,

ঘুম ঘুম নেশার ঘোরে চোখের নদী সাঁতরে যাই

ঘুণ পোকারা যেমন দরজা জানালা

কেটেই চলে একরোখা —

মিষ্টি জলের মাছ গুলো কে

বলিষ্ঠ হাতে আগলে রাখি ;

নোনা জলে ভেসে যেতে দেব না –

ঠোঁট যেন আজ চুপটি গাঁ !!

নদীর বাঁকে ই চোখের ভাষা ছলাৎ ছল ,

কেঁপে কেঁপে , ঝুঁকে ঝুঁকে সাঁতরে পেরিয়ে আসি চোখের মানচিত্র !!

নিঃশ্বাসের ওঠাপড়ায় অন্ধ রাতের পবিত্রতা !!

এবার সময় হয়েছে মশাল জ্বালাবার !! ….


    Gargee Lahiri

    Author: Gargee Lahiri

    Comments

    Please Login to comment